করোনাভাইরাস: নাগরিকরা প্রত্যেকে পাবেন ১২ শ ডলার


করোনাভাইরাস

যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ১৪৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। নিয়ে দেশটিতে মোট মৃতের সংখ্যা ৯২৮। এমতাবস্থায় দেশটির সরকার জনগণের জন্য বেশ কিছু সুবিধা প্রদানের ঘোষণা দিয়েছেন।

সম্প্রতি দেশটির সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে নাগরিকদের যাদের বার্ষিক আয় ৭৫ হাজার ডলারের নিচে জনপ্রতি তারা ১২০০ ডলার করে পাবেন। স্বামী স্ত্রী বা দম্পতি মিলে পাবেন ২৪০০ ডলার।

এছাড়া ১৭ বছরের প্রতি সন্তানের জন্য পাবেন ৫০০ ডলার। বার্ষিক আয় ৭৫ হাজার ডলার থেকে ৯৯ হাজার ডলার পর্যন্ত কমতে থাকবে এবং বছরে এককভাবে যারা ৯৯ হাজার ডলার আয় করেন তার এ সহযোগিতা পাবেন না। আমেরিকার ৯০ শতাংশ মানুষই ইতিহাসের সবচেয়ে বড় এ নাগরিক সুবিধা প্রাপ্তির যোগ্য হবেন বলে মনে করা হচ্ছে।

নাগরিক সহযোগিতার অংশ হিসেবে কংগ্রেসের আইনে বলা হয়েছে, শিক্ষার্থীদের দেয়া ঋণের পেমেন্ট স্থগিত রাখা হয়েছে। কর্মহীনদের জন্য চার মাসের ভাতা প্রাপ্তই নিশ্চিত করা হয়েছে।

এসবের বাইরে ক্ষুদ্র ব্যবসায় ঋণ দেয়া, এয়ারলাইনস কোম্পানিসহ বড় শিল্প প্রতিষ্ঠানেও সহযোগিতার অর্থ আছে এ ফেডারেল অনুদানে। বাড়ির মালিকদের ফেডারেল ব্যাকড মর্টগেজের বিলম্ব ফি দুই মাসের জন্য স্থগিত রাখা হয়েছে। এ জন্য বাড়ির মালিকদের ব্যাংকের সঙ্গে যোগাযোগ করত হবে।

ভাড়াটেদের দুই মাসের জন্য উচ্ছেদ করা যাবে না। তাদের ওপর বাড়ির মালিকেরা বিলম্ব ফি আরোপ করতে পারবে না। চার মাসের মধ্যে বাড়ি ছেড়ে দিতে ভাড়াটেদের বলতে পারবে না।

এদিকে নিউইয়র্কে যারা কোভিড-১৯ বা করোনাভাইরাসের কবলে পড়ে যারা কর্মহীন হয়ে পড়েছেন তাদের বেকারভাতা দেয়া হচ্ছে। দ্রুতই এ ভাতার আবেদন প্রক্রিয়া করা হচ্ছে।

রেদওয়ানুল/আওয়াজবিডি

ads