সিঙ্গাপুরে করোনায় আক্রান্ত বাংলাদেশির অবস্থা আশঙ্কাজনক


সিঙ্গাপুরে করোনায় আক্রান্ত প্রথম বাংলাদেশি

সিঙ্গাপুরে প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ৫ বাংলাদেশির মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

বুধবার সকালে সিঙ্গাপুরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ভিভিয়ান বালাকৃষ্ণানার বরাত দিয়ে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ তথ্য জানান। করোনায় আক্রান্ত ওই বাংলাদেশিকে হাসপাতালে ভর্তি করানোর পর থেকে তার শরীরে কোন ঔষধ কাজ করছে না বলে জানান তিনি।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সিঙ্গাপুর কর্তৃপক্ষ করোনায় আক্রান্ত ওই বাংলাদেশিকে বাঁচানোর জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছেন।

করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর আশঙ্কাজনক অবস্থায় থাকা ওই বাংলাদেশিসহ আরও চার সিঙ্গাপুর প্রবাসী দেশটির একটি হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

সিঙ্গাপুরে এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৮১ জন। এদের মধ্যে পাঁচজন বাংলাদেশি। গত ৯ ফেব্রুয়ারি সিঙ্গাপুরে প্রথমবারের মতো ৩৯ বছর বয়সী এক বাংলাদেশির শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত করে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

বাংলাদেশি ওই প্রবাসী সিঙ্গাপুরের এনসিআইডির আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন। এর একদিন পর ১১ ফেব্রুয়ারি সেলেটার অ্যারোস্পেস হেইটসের নির্মাণাধীন স্থাপনায় কর্মরত আরও এক বাংলাদেশির শরীরে করোনার উপস্থিতি নিশ্চিত হয়।

পরে ১৩ ফেব্রুয়ারি ৩৭ ও ৩০ বছর বয়সী আরও দুই বাংলাদেশি করোনা আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানায় সিঙ্গাপুরের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। সিঙ্গাপুরের ওয়ার্ক পাসধারী এ দুই বাংলাদেশিও সেলেটার অ্যারোস্পেসে কর্মরত ছিলেন।

সবশেষ গত শনিবার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন ২৬ বছর বয়সী আরেক বাংলাদেশি। এর আগে সিঙ্গাপুরে যে চার বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন; তাদের সঙ্গে একই জায়গায় কাজ করতেন তিনি।

মরণঘাতি এ ভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১৩৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। যেখানে উৎপত্তিস্থল হুবেই প্রদেশেরই ১৩২ জন। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২ হাজার চারজনে দাঁড়িয়েছে।

রেদওয়ানুল/আওয়াজবিডি

ads