সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী

ছাত্ররাজনীতি বন্ধের সিদ্ধান্ত বুয়েটের


হাসিনা

বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি বন্ধের সিদ্ধান্ত বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তবে সার্বিক ছাত্ররাজনীতি বন্ধের বিষয়ে নেতিবাচক মনোভাব দেখিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এটিতো মিলিটারি ডিক্টেটরদের কথা। বিকালে  সাম্প্রতিক ভারত ও যুক্তরাষ্ট্র সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন প্রধানমন্ত্রী।

এতে একজন সাংবাদিক জানতে চান বুয়েটে আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের পর সেখানে ছাত্ররাজনীতি বন্ধের দাবি উঠেছে। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া কি? জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে বুয়েট তাদের ক্যাম্পাসে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে পারে। আর একটা ঘটনা ঘটেছে বলে দাবি উঠাবে যে ছাত্র রাজনীতি ব্যান। আমি নিজেই যেহেতু ছাত্র রাজনীতি করে এসেছি। সেখানে আমি ছাত্র রাজনীতি ব্যান বলব কেন ?

তিনি বলেন, নষ্ট রাজনীতি যেটা, সেটা তো আইয়ুব খান শুরু করে দিয়েছিল, আবার জিয়াউর রহমান এসে শুরু করলো একইভাবে এবং দুইজনের ক্ষমতা দখলের চরিত্র একই রকম।

তিনি বলেন, এই যে একটা সন্ত্রাসী ঘটনা বা এই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানেই তো সংগঠন করা নিষিদ্ধ আছে। বুয়েট যদি মনে করে তারা সেটা নিষিদ্ধ করে দিতে পারে। কিন্তু একবারে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধ করে দিতে হবে, এটা তো মিলিটারি ডিক্টেটরদের কথা। আসলে তারা এসে তো সবসময় পলিটিকস ব্যান, স্টুডেন্ট পলিটিক্স ব্যান তারাই করে গেছে।

এক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আবরার হত্যাকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করা হবে। এখানে কেউ কোন পরিচয়ে ছাড় পাবে না। একই সঙ্গে সারা দেশে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও বিশ্ববিদ্যালয়ের হলে তল্লাশি চালানোর নির্দেশ দেবেন বলেও জানান তিনি।