করোনাঃ অর্থকষ্টে থাকা অভিনেতার আত্মহত্যা


অভিনেতার আত্মহত্যা

করোনা ভাইরাসের এই সময় লকডাউনে আছে গোটা ভারত। আর এ অবস্থায় কর্মহীনও হয়ে পড়েছেন অনেকেই।

উদ্ভূত এই মহামারীকালে কাজ হারিয়ে ঋণের দায়ে জর্জরিত হয়ে  আত্মহত্যা করলেন  ৩২ বছর বয়সী  টিভি অভিনেতা মনমীত গ্রেওয়াল।

শুক্রবার (১৫ মে) রাতে মিড ডে সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, তিনি তার নভি মুম্বাইয়ের আবাসনে আত্মহত্যা করেছেন । তার স্ত্রী ও বাবা-মা রয়েছেন। আদত সে মজবুর, কূলদীপক প্রভৃতি বেশ কিছু সিরিয়ালে তিনি অভিনয় করে জনপ্রিয় হন।

মনমীতের বন্ধু মনজিত সিং ভারতীয় গণমাধ্যমে জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় স্বাভাবিক আচরণ করেছিলেন অভিনেতা। স্ত্রী রান্নাঘরে কাজে ব্যস্ত থাকার সময় নিজের ঘরে ঢুকে দরজা বন্ধ করে দেন মনমীত। এর পর হঠাৎ চেয়ার উলটে পড়ার শব্দ শুনে ঘরে ঢুকে তাঁকে গলায় দোপাট্টার ফাঁস দিয়ে সিলিং ফ্যান থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পান অভিনেতার স্ত্রী।

স্বামীকে ফাঁস থেকে মুক্ত করার অনেক চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়ে চিৎকার করে সাহায্য চাইতে থাকেন মনমীতের স্ত্রী। প্রতিবেশীরা ছুটে এলেও তার করোনা সংক্রমণ ঘটেছে ভেবে কেউ মনমীতকে ফাঁস থেকে মুক্ত করার জন্য এগিয়ে আসেননি। শেষে এক নিরাপত্তারক্ষী এসে ফাঁস খুলে দেহহ উদ্ধার করেন।

হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে মনমীতকে মৃত অবস্থায় আনা হয়েছে জানান চিকিৎসকরা।

স্থানীয় থানার কর্মকর্তা জানান, করোনার কারণে লকডাউনে কাজের সুযোগ না পেয়ে বেরোজগেরে হয়ে পড়েন মনমীত। এ দিকে  তার প্রচুর ধারও ছিল। বাড়িভাড়া হিসেবে মাসিক ৮,৫০০ টাকাও তিনি জোগাড় করতে পারেননি। স্ত্রীর গয়না বন্ধক রেখে সামান্য কিছু অর্থ সংগ্রহ করলেও তাতে বেশি দিন খরচ সামলানো যায়নি।

পিকিউ/আওয়াজবিডি

ads