বাংলাদেশে ২১৮ জন করোনা রোগী যেসব জেলার


করোনাভাইরাস

দেশে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা। নতুন করে ৫৪ জন করোনা শনাক্তের পর

মোট রোগী দাঁড়িয়েছে ২১৮ জনে। এ যাবত ৩৩ জন সুস্থ হলেও গত দুদিনে কেউ সুস্থ হয়নি বলে জানিয়েছে আইইডিসিআর। যা উদ্বেগের।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী, এর মধ্যে অর্ধেকেরও বেশি আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ঢাকা শহরে। ঢাকা ছাড়াও আরও ২০টি জেলায় এখন পর্যন্ত এই ভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।

আইইডিসিআর এর জানায়, নতুন আক্রান্ত ৫৪ জনের মধ্যে পুরুষ ৩৩ জন। নারী ২১ জন। এদের মধ্যে ১১ থেকে ২০ বছর বয়সী ৫ জন। ২১-৩০ বছরের ১৫ জন। ৩১-৪০ বছর বয়সী ১০ জন। ৪১-৫০ বছর বয়সী ৭ জন। ৫১-৬০ বছর বয়সী ৭ জন এবং ষাটোর্ধ্ব রয়েছেন ১০ জন।

বুধবার রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদি সেব্রিনা ফ্লোরা এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, নতুন করে আক্রান্তের মধ্যে ৩৯ জনই ঢাকা শহরের। এর বাইরে একজন ঢাকা জেলার একটি উপজেলার। বাকিরা বিভিন্ন জেলার।

তিনি আরও বলেন, সারাদেশে ৯৮৮টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এর মধ্যে ৯৮১টি পরীক্ষা করে ৫৪ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এছাড়া যারা আক্রান্ত হয়েছেন তাদের মধ্যে কেউ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হননি।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী যে ২১৮ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেব শনাক্ত হয়েছেন, তাদের মধ্যেও ঢাকায় অবস্থানরতদের সংখ্যাই বেশি। এ পর্যন্ত ঢাকা শহরেরই ১২৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন এই ভাইরাসে। ঢাকার বাইরে সবচেয়ে বেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন নারায়ণগঞ্জে। এই জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪৬ জন।

এছাড়া মাদারীপুরে আক্রান্তের সংখ্যা ১১ জন। আর উত্তরের জেলা গাইবন্ধায় এই সংখ্যা ৫।

এর বাইরে নরসিংদীতে ৪ জন, চট্টগ্রামে ৩ জন, মানিকগঞ্জে ৩ জন, কুমিল্লায় ২ জন, জামালপুরে ২ জন ও টাঙ্গাইলে ২ জন আক্রান্ত হয়েছেন করোনাভাইরাসে।

আর এখন পর্যন্ত একজন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন যেসব জেলায়, সেগুলো হলো— চুয়াডাঙ্গা, গাজীপুর, কিশোরগঞ্জ, মৌলভীবাজার, নীলফামারী, রাজবাড়ী, রংপুর, শরীয়তপুর, শেরপুর, সিলেট ও কক্সবাজার।

রেদওয়ানুল/আওয়াজবিডি

ads