বিপুল পরিমাণ ইয়াবাসহ চেয়ারম্যানের ভাগ্নে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী আমজাদ গ্রেফতার

গ্রেফতার

নারায়নগঞ্জ বন্দর উপজেলার ধামগড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়াম্যানের ভাগ্নে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী মোঃ আমজাদ হোসেনকে (২৫) গ্রেফতার করেছে জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশ। এসময় তার কাছ থেকে ১০০ পিছ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে।
রবিবার (৫ জুলাই) দুপুরে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন ডিবির এসআই খোকন চন্দ্র সরকার।

এর আগে শনিবার (৪ জুলাই) রাতে অভিযান চালিয়ে হালুয়াপাড়া এলাকার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে দীর্ঘদিন যাবত চেয়ারম্যান মামার শেল্টারে মাদক ব্যবসা করে আসা আমজাদকে।

গ্রেফতারকৃত মোঃ আমজাদ হোসেন বন্দর উপজেলার হালুয়া পাড়া ,দশদুনা এলাকার মোঃ ফজলুল হকের ছেলে ও ধামগড় ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়াম্যান মাসুম আহম্মেদের আপন ভাগ্নে।

এসআই খোকন চন্দ্র সরকার জানান, বন্দর উপজেলার দশদুনা এলাকায় একটি বাড়ির উঠানে বসে মাদক বিক্রি হচ্ছে, এমন সংবাদের ভিত্তিতে উক্ত এলাকায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে মোঃ আমজাদ হোসেনকে নিজ বাড়িতে বসে মাদক বিক্রি করাকালে হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়। পরে তার দেহ তল্লাশি করে পড়নের লঙ্গির কোচর থেকে ১০০ পিছ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

এসআই খোকন চন্দ্র সরকার আরো জানান, আসামির মামা মাসুম আহম্মেদ ধামগড় ইউনিয়নের বর্তমান চেয়াম্যান হওয়ায় তার ক্ষমতার প্রভাব দেখিয়ে নিজ বাড়িতে বসে মাদক বিক্রি করত। কারণ চেয়াম্যানের ভয়ে কেউ কিছু বলতে সাহস পেত না। মামার শেল্টারে আমজাদ র্দীঘদিন যাবত সিন্ডিকেটের মাধ্যমে মাদক ব্যাবসা করে আসছিল। কয়েকদিন পূর্বে মাদক সিন্ডিকেটের অপর সদস্য মওদুদকে ৪০৫ পিস ইয়াবা সহ গ্রেফতার করে পুলিশ।

খোজ নিয়ে জানা গেছে, এসব শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ীদের পক্ষে থানা পুলিশের কাছে তদ্বির ও জেল থেকে ছাড়িয়ে আনার মিশনে নেমেছে চেয়ারম্যান মাসুমের পালিত ও অনুগত কয়েকজন।

মাদক ব্যাবসার নেপথ্য নায়কদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার দাবী করে স্থানীয়রা জানান, কয়েক মাস আগে দেশিয় অশ্র এবং মাদক সহ আমজাদ ও তার মা হোসনেয়ারা কে গ্রেফতার করে কামতাল তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ।পরে চেয়ারম্যান মাসুম নিজে উপস্থিত থেকে মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে তাদেরকে ছাড়িয়ে আনেন। পরবর্তীতে বীরদর্পে মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছে আমজাদ।

মাহফুজ জাহিদ
মাহফুজ জাহিদ
https://www.awaazbd.net/author/awaaz_officlal
ads